রিং আইডি নিয়ে যা বললেন শরীফুল ইসলাম ।

জাতীয় বাংলাদেশ

 1,404 total views

সাম্প্রতিক সময়ে আলোচিত রিং আইডির কার্যক্রম বন্ধ হয়ে যাওয়ায় অনেক গ্রাহক পড়েছেন বিপাকে ৷ চলতি বছরের শেষের দিকে একজন গ্রাহকের করা মামলায় রিং আইডির কমিউনিটি জবের পেমেন্ট পদ্ধতি স্থগিত করে সরকার ৷ মামলার প্রক্রিয়া শেষ না হলে রিং আইডির কার্যক্রম চালু করা অসম্ভব ৷ রিং আইডির ব্যবস্থাপনা পরিচালক শরীফুল ইসলামের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হয় ৷ জানতে চাওয়া হয় রিং আইডির বর্তমান পরিস্থিতি ও ভবিষ্যত পরিকল্পনা সম্পর্কে ৷

রিপোর্টার : রিং আইডির কার্যক্রম কখন চালু হবে ?

শরীফুল ইসলাম : দেখুন ৷ রিং আইডি সোশ্যাল প্ল্যাটফর্ম ৷ এটা গুগল প্লে স্টোরে এখনো আছে ৷ এর সবগুলো সেবা চালু আছে ৷ শুধু কমিউনিটি জবের পেমেন্ট পদ্ধতি বন্ধ আছে ৷ কারন, আমাদের ব্যাংক হিসাব ফ্রিজ করে রাখা হয়েছে ৷ মামলার প্রক্রিয়া শেষ হলে আমরা নতুন উদ্যমে কাজ শুরু করবো ৷

রিপোর্টার : আচ্ছা মামলা কেন হল ?

শরীফুল ইসলাম : রিং আইডির সব গ্রাহক যে সমান হবে তা নয় ৷ যারা রিং আইডির প্রতি বিশ্বাস রাখে এবং ভালোবাসে তারা কখনই মামলার পথ বেছে নেবেনা ৷ মামলা যিনি করেছেন তিনি রিং আইডির কার্যক্রমে লোভে পড়েছেন ৷ আমরা তো কাউকে বিনিয়োগ করার জন্য জোর করি নাই ৷ তাহলে তারা কেন বিনিয়োগ করেছে ৷ আমরা কমিউনিটি জব বেকার ও যূবকদের জন্য চালু করেছি ৷ কিন্তু কিছু লোক আছে রিং আইডির বিরুদ্ধে কথা বলে ৷ নানা রকম গুজব ছড়ায় ৷ এরা রিং আইডির প্রকৃত গ্রাহক হতে পারেনা ৷ হ্যা কিছু এজেন্ট আছে অসাধু ৷ আমরা তাদের আইডির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছি ৷ রিং আইডির কোম্পানির নামে মামলা হয়নি ৷ মামলা হয়েছে ঐ সব অসৎ এজেন্টের বিরুদ্ধে ৷ যার ফলে এখন আমাদের কোম্পানিকে মামলায় জড়াতে হচ্ছে ৷ আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল ৷ আইনের মাধ্যমে আমরা চাই মামলা নিষ্পত্তি হোক ৷৷

 

শরীফুল ইসলাম : রিং আইডিতে এটা একটা দুর্ঘটনা ৷ মামলা হয়েছে বলে সব কিছু বন্ধ কেন হবে ? যারা মামলা করতে চায় তারা আসলে রিং আইডি সম্পর্কে খুব কম জানে ৷ গ্রাহকদের কষ্ট আমরা বুঝি ৷ এখানে গ্রাহক বলেন বা এজেন্ট বলেন সবাই বিনিয়োগ করেছে ৷ আমরা কয়েকশ কোটি টাকা দিয়ে রিং আইডির সার্ভার কিনেছি ৷ তো আমরা কি এখনো লাভের মুখ দেখতে পেরেছি ৷ পারিনি ৷ কারন এটা অনেক সময়ের প্রয়োজন ৷ আমি একা কেন লাভবান হবো ৷ আরও সবাইকে এখান থেকে লাভবান হওয়ার সুযোগ করে দিবো ৷ রিং আইডির মালিক আমি একা নই ৷ এটার মালিক গ্রাহকেরা বা ব্যবহারকারী ৷ তারাই এটাকে টিকিয়ে রাখবে ৷ তারাই যদি মামলা করে নিজের পায়ে নিজে কুড়াল মারে তাহলে আমার কি করার আছে ৷

রিপোর্টার : গ্রাহকেরা কিভাবে টাকা পাবে ?

শরীফুল ইসলাম : যারা রিং আইডির সাথে থাকতে চাননা তাদের টাকা ফেরত দেয়া হবে ৷ সমস্যা নেই ৷ আর আমরা রিফান্ড অপশন চালু করছি ৷কোন গ্রাহকের টাকা আমরা হাতিয়ে নেবো না ৷ আমাদের যদি অসৎ উদ্দেশ্য থাকতো তবে টাকা পয়সা নিয়ে অনেক আগেই পালিয়ে যেতাম ৷

রিপোর্টার : এখন আপনাদের ভবিষ্যত কর্মপরিকল্পনা কি ??

শরীফুল ইসলাম আপনি হয়তো জানেন যে আমরা ডিজিটাল মূদ্রা চালু করতে চেয়েছিলাম ৷ কিন্তু প্রয়োজনীয় অবকাঠামো তৈরি করতে না পারায় আমাদের মেয়াদ শেষ হয়ে যায় ৷ বাংলাদেশ ব্যাংকের অনুমতি নিয়ে আমরা আবার রিং পে চালু করার সিদ্ধাল্ত নিচ্ছি ৷ এটা চালু হলে সবাই লেনদেন করতে পারবে ৷এছাড়া আমরা কমিউনিটি জবের কাজের পরিধি বাড়াবো ৷ শুধু বিজ্ঞাপন দেখিয়ে টাকা আয় সম্ভব নয় ৷ বিভিন্ন এ্যাপ ইনস্টল করা, প্রমোশনাল লিংক শেয়ার, জরিপ করা, পণ্যের মার্কেটিং করা এসব কাজ গ্রাহকেরা করবে ৷ এর ফলে তারা আয় করতে পারবে ৷এরপর দেশের প্রতিটি জেলায় রিংহ্যাব চালু করবো যেখানে গ্রাহকেরা পণ্য বিক্রি করে কমিশনের মাধ্যমে টাকা পাবে ৷এজেন্ট যারা আছে তাদের পণ্য বিক্রি করার জন্য কমিশন দেয়া হবে ৷ তাছাড়া এখানে যে কেউ পণ্য অর্ডার করতে পারবে ৷ মোবাইল বা পোশাক অন্যান্য সামগ্রী বিক্রির জন্য রিং স্টোরকে শক্তিশালী করা ৷ তাছাড়া রিং আইডির ওয়্যার হাউস প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে ৷ এটা বাংলাদেশের সবচেয়ে বড়ো ওয়্যার হাউস ৷ এখান থেকে পণ্য বাজারজাত করা হবে ৷ রিং আইডি লাইভ করেও আয় করা যাবে ৷ রিং আইডির এ্যাপে বিভিন্ন ধরনের সেবা চালু করা হবে ৷ বর্তমানে ডক্টর নামে সেবা চালু আছে ৷এছাড়া আরও নানা পরিকল্পনা রয়েছে ৷ আমরা রিং মেলার আয়োজন করবো ৷ যেখানে রিং স্টল থাকবে ৷ এছাড়া রিং আইডির গ্রাহকদের প্রতিবছর বিভিন্ন ইভেন্ট হবে ৷ রিং সম্মেলন করবো ৷ রিং আইডির প্রচারণার জন্য আমরা মিডিয়ায় বিজ্ঞাপন দেখাবো ৷ প্রতিবছর ক্যালেন্ডার বের করবো ৷ বিভিন্ন কোম্পানিতে স্পন্সর করবো ৷ এটা হবে বিশাল প্ল্যাটফর্ম ৷ যেখানে গ্রাহকদের আইডি কার্ড দেয়া হবে ৷ তাই সবাই কে বলবো রিং আইডির সাথে থাকুন ৷ রিং আইডি আপনাকে কখনই ঠকাবেনা ৷ আমরাই বাংলাদেশে একমাত্র উদাহরণ তৈরি করতে চাই ৷

শেয়ার করুনShare on Facebook
Facebook
Pin on Pinterest
Pinterest
Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Print this page
Print
Email this to someone
email

Leave a Reply

Your email address will not be published.